ভোঁতা ড্রিল বিট ধারালো করে নিন সহজেই (ভিডিও টিউটোরিয়াল)
ভোঁতা ড্রিল বিট ধারালো করে নিন সহজেই (ভিডিও টিউটোরিয়াল)

ড্রিল বিট এর ধার দ্রুত ক্ষয়ে যায়। পিসিবি ড্রিল মেশিন গুলোতে ব্যবহৃত বিট গুলোকে চাইলে খুব সহজেই ধারালো করে নেয়া যায়। আজকের এই ভিডিও টিউটোরিয়ালে ড্রিল বিট ধার করানোর সহজ উপায় নিয়েই বলছি। সে সাথে এই লেখাই কিছু প্রয়োজনীয় বিষয় তুলে ধরছি যা জানা থাকলে অনেক ক্ষেত্রেই কাজের জন্য সুবিধা হয়।

পিসিবি ড্রিল বিট

পিসিবি তে সাধারণত নিম্নোক্ত মানের ড্রিলবিট গুলো বেশি ব্যবহার হয়-

  • ০.৩ মিলি মিটার (সাধারন 1/4 watt রেজিস্টর ও পার্টসের জন্য)
  • ০.৫ মিলি মিটার (ইন্ডাক্টর ও একটু মোটা পা যুক্ত ইলেকট্রনিক পার্টসের জন্য)
  • ১ মিলি মিটার – ৩ মিলি মিটার (পিসিবি মাউন্টেড , বড় রিলে প্রভৃতির জন্য)

এছাড়াও প্রয়োজন অনুযায়ী ইলেকট্রনিক পার্টসের লেগের পুরুত্বের ওপর নির্ভর করে আরো মোটা ড্রিল বিট ও ব্যবহার করা যেতে পারে। সেক্ষেত্রে স্বাভাবিক ভাবেই পিসিবি কেউ উপযুক্ত পরিমান পুরু ও মোটা হতে হবে।

ড্রিল মেশিন কোথায় পাওয়া যায়

ইলেকট্রনিক পার্টস বিক্রি করে এমন দোকানে হর-হামেশাই এ ধরনের হ্যান্ড ড্রিল পাওয়া যায়। অনেক অনলাইন শপেও ইদানীং এর বিক্রি বেড়েছে। এগুলোর মধ্যে কিছু আছে অটোমেটিক আর কিছু আছে ম্যানুয়েল। নিচে দুই ধরনের ড্রিল মেশিনের ছবি দেখানো হলো-

ম্যানুয়াল পিসিবি হ্যান্ড ড্রিল মেশিল ও বিভিন্ন আকৃতির ড্রিল বিট
ম্যানুয়াল পিসিবি হ্যান্ড ড্রিল মেশিল ও বিভিন্ন আকৃতির ড্রিল বিট

নিচে দেখতে পাচ্ছেন কল-কারখানায় বহুল ভাবে ব্যবহৃত আধুনিক পিসিবি ড্রিল মেশিন। এর আরেক নাম ড্রিল প্রেস (Drill Press)।

ফ্যাক্টরিতে বহুল ব্যবহৃত ড্রিল প্রেস মেশিন
ফ্যাক্টরিতে বহুল ব্যবহৃত ড্রিল প্রেস মেশিন

এছাড়াও অনেক হবিস্ট নিজ উদ্যোগে আলাদা ভাবে ড্রিল চক ও বিট কিনে নিয়ে নিজেই বানিয়ে নেন তাদের কাঙ্ক্ষিত পিসিবি ড্রিল মেশিন। নিচের ছবিতে দেখতে পাচ্ছেন মোটরের সাথে ড্রিল চক লাগিয়ে নিজে বানিয়ে নেবার মত সকল সরঞ্জাম।

পিসিবি ছিদ্র করবার জন্য ড্রিল চক সরঞ্জাম সমূহ
পিসিবি ছিদ্র করবার জন্য ড্রিল চক সরঞ্জাম সমূহ

উপরের এই ড্রিল চক কে কোন একটি হাইস্পিড মোটরের সাথে লাগিয়ে নেয়া হয়। তারপর এর অগ্রভাগে প্রয়োজন অনুযায়ী উপযুক্ত আকৃতির ড্রিল বিট লাগিয়ে নিয়ে পিসিবি ছিদ্র করা যায়।

দাম কেমন

আকার ও আকৃতি অনুযায়ী ড্রিল মেশিনের দাম নির্ভর করে। তাই নির্দিষ্ট করে বলাটা কষ্টকর। তবে ছোট ম্যানুয়েল হ্যান্ড ড্রিল গুলো ২৫০ – ৩৫০ টাকার মধ্যে হয় যা দিয়ে অধিকাংশ হবিস্ট ও তরুণ শিক্ষার্থিদের কাজ চলে। স্বাভাবিক ভাবেই বড় আকৃতির গুলোর দাম বেশি।

ড্রিল চক ও আকৃতি ও আনুষাঙ্গিক জিনিসের উপরে দাম নির্ভর করে। এগুলোও ২৫০ – ৪০০ টাকার মধ্যেই বিভিন্ন অনলাইন শপে পাওয়া যায়। নবাবপুর ইলেকট্রিক মারকেট গুলো ঘুরলে সহজেই বিভিন্ন আকৃতির ড্রিল চক পাওয়া যাবে। তবে ড্রিল চক কেনার সময় অবশ্যই মোটর এক সাথে কেনা উচিৎ। নয়ত ক্ষেত্রবিশেষে চক ও মোটরের শ্যাফটের আকার মিলবার না কারনে ভালমত চক টি শ্যাফটের সাথে লাগে না। সেক্ষেত্রে ছিদ্র করবার সময় প্রচুর ঝাঁকুনির সৃষ্টি করে ড্রিলিং এর কাজে ব্যাঘাত ঘটায়।

কিভাবে ধার দেয়া যায় ড্রিল বিট

স্বাভাবিক ভাবেই মনে হতে পারে যে ছিদ্র করতে করতে করতে বিটের ধার কমে গেলে নতুন বিট কিনে নিতে হবে। কিন্তু আসলে তা নয়। একটু বুদ্ধি খরচ করে এই ভোঁতা ড্রিল বিটকে ধার দিয়ে নতুনের মত কাজ চালানো যায়। এখন সে পদ্ধতি সম্পর্কেই বলছি।

প্রয়োজনীয় উপকরণ

এ কাজের জন্য আমাদের দরকার এরকম একটি কাটিং ডিস্ক। খুব বড় আকারের দরকার নেই। ছোট আকৃতির কাটিং ডিস্ক যা কিনা নিচের ছবির মত করে মোটরে  লাগানো যাবে এমন ব্যবস্থা করলেই হবে –

কাটিং ডিস্ক দিয়ে ড্রিল বিট ধার দেবার মূল ব্যবস্থা
কাটিং ডিস্ক দিয়ে ড্রিল বিট ধার দেবার মূল ব্যবস্থা

বুঝবার সুবিধার জন্য আমাদের ইলেকট্রনিক্স টিম একটি টিউটোরিয়াল ভিডিও প্রস্তুত করেছেন। এই টিউটোরিয়াল ভিডিওতে বিস্তারিত দেখানো হয়েছে কিভাবে একটি ভোঁতা বিট কে ধার দেয়া যায়। ভাডিও টি ভালো করে দেখলে বুঝতে পারবেন বিশেষ একটি এঙ্গেলে এই বিট কে ধার দিতে হবে।

ড্রিল বিট ধারালো করবার ভিডিও টিউটোরিয়াল

আশাকরি এই ভিডিওর মাধ্যমে নতুন অনেকের উপকার হবে। নতুন বিট কেনার পরিবর্তে একই বিট কে বারবার ব্যবহার করে পকেটের টাকা বাঁচবে।

ঘুরে আসুন আমাদের ইলেকট্রনিক্স শপ থেকেঃ
ঘুরে আসুন আমাদের ইলেকট্রনিক্স শপ থেকেঃ
ঘুরে আসুন আমাদের ইলেকট্রনিক্স শপ থেকেঃ
ঘুরে আসুন আমাদের ইলেকট্রনিক্স শপ থেকেঃ

কমেন্ট প্রদান

Please enter your comment!
Please enter your name here