ইনকিউবেটর কন্ট্রোলার তৈরি করুন নিজেই
ইনকিউবেটর কন্ট্রোলার তৈরি করুন নিজেই

ইনকিউবেটর কন্ট্রোলার খামারিদের কাছে খুব জনপ্রিয়। যারা নিজের হাতে ইনকিউবেটর মেশিন তৈরী করতে চান তাঁদের জন্যই আজকের এই পোস্ট। মাইক্রোকন্ট্রোলারের মূল কোড, সার্কিট ডায়াগ্রাম, এর বিভিন্ন সুবিধাবলি ও আমার তৈরি করা কন্ট্রোলারের বিবরণ ও ছবি সহ আজকের এই লেখা।

বিশেষ জ্ঞাতব্য

  1. এই ইনকিউবেটর কন্ট্রোলারটি তৈরি করতে Atmega328 বা আরডুইনো চিপ ব্যবহার করা হয়েছে। তাই মাইক্রোকন্ট্রোলার প্রোগ্রামিং ও ইলেকট্রনিক্স সম্পর্কে ধারণা থাকা অবশ্যই জরুরী। একান্তই না জানলে যিনি এ বিষয়ে জানেন এমন কোন বড় ভাইয়ের সাহায্য নিতে পারেন।
  2. কাজ শুরু করার আগে ডিটারমিনেশন আর কিছু অর্থ নিয়ে নামবেন যাতে ট্রায়াল এন্ড এরর করতে পারেন।

প্রয়োজনীয় ইলেকট্রনিক কম্পোনেন্ট

নিচের টেবিলে এই ইনকিউবেটর কন্ট্রোলার তৈরির প্রয়োজনীয় যন্ত্রাংশ দেয়া হলো-

কম্পোনেন্টপরিমাণ
LCD 16021
DS18b201
DHT111
push button3
12volt relay6
5-12volt Buzzer1
12volt 2amp adapter1
DC socket1
7805 voltage regulator1
2200uf (25V) Capacitor1
Atmega3281
Green Connector 3pole1
Green Cnnector 2pole
28 pin base1
Normal dot board1
10k (100pcs)1
4.7k (100pcs)1
10k pot1

 

উপরোক্ত মালামাল কিনতে বর্তমান বাজারে আনুমানিক ৮৫০ থেকে ১০০০ টাকা খরচ হতে পারে। যা বর্তমানে বাজারে প্রাপ্ত ইনকিউবেটর মেশিনের দাম থেকে অনেক সাশ্রয়ী।

কন্ট্রোলারে যা থাকছে

  1. 16X2 এলসিডি ডিসপ্লেতে কন্ট্রোলারের বর্তমান অবস্থা দেখাবে।
  2. ১ম লাইনে T: দ্বারা বর্তমান টেম্পারেচার এবং H: দ্বারা বর্তমান হিউমিডিটি দেখাবে
  3. ২য় লাইনে স্ট্যাটাস দেখাবে
  4. তিনটি পুশ বাটন থাকবে
    • সেট বাটন
    • হাই বাটন
    • লো বাটন
  5. টেম্পারেচার সেন্সিং এর জন্য DS18B20 সেন্সর থাকছে
  6. হিউমিডিটির জন্য থাকছে DHT11 সেন্সর (২টি সেন্সর ব্যবহার করা হয়েছে নিখুঁত হিউমিডিটি ও টেম্পারেচার নির্ণয়ের জন্য)
  7. রিলে থাকবে মোট ৬টি যথা-
  • ১। টেম্পারেচার (হিটার) রিলে
  • ২। ওভার টেম্পারেচার রিলে
  • ৩। হিউমিডিফায়ার রিলে
  • ৪। ডিহিউমিডিফায়ার রিলে
  • ৫। ভেন্টিলেশন রিলে
  • ৬। মোটর কন্ট্রোলিং রিলে

ইনকিউবেটর কন্ট্রোলার সেটিং ও এর বিভিন্ন ফিচার

এখন আলাপ করছি এই কন্ট্রোলারের বিভিন্ন সুবিধাবলি ও সেটিং পদ্ধতি নিয়ে-

  • ডিসপ্লে- টেম্পারেচার (হিটার) ডিসপ্লেতে বর্তমান টেম্পারেচার এবং বর্তমান হিউমিডিটি দেখাবে। সেট বাটনে চাপ দিলে টেম্পারেচার সেট করা যাবে। যেমনঃ আমি যদি ৯৯.৫ সেট করি, তাহলে (৯৯.৫০ – ০.২০) অর্থাৎ ৯৯.৩০ এর কম যদি টেম্পারেচার হয় তাহলে ১ নং টেম্পারেচার (হিটার) চালু হবে এবং (৯৯.৫০ + ০.২০) অর্থাৎ ৯৯.৭০ এর বেশি হলে ১ নং টেম্পারেচার (হিটার) বন্ধ হবে।
  • ওভার টেম্পারেচার – যদি ইনকিউবেটরের তাপমাত্রা সেট করা টেম্পারেচার থেকে + ০.৫০ হয় তাহলে ২ নং ওভার টেম্পারেচার রিলে চালু হবে। অর্থাৎ ৯৯.৫০ সেট করা থাকলে, ৯৯.৫০+০.৫০ = ১০০ এর বেশি হলে ২ নং ওভার টেম্পারেচার রিলে চালু হবে। আর ইনকিউবেটরের তাপমাত্রা কে নিয়ন্ত্রণ করবে।
  • হিউমিডিফায়ার এবং ডি-হিউমিডিফায়ার ডিসপ্লেতে বর্তমান টেম্পারেচার এবং বর্তমান হিউমিডিটি দেখাবে। সেট বাটনে ২য় বার চাপ দিলে হিউমিডিটি সেট করা যাবে। যদি হিউমিডিটি ৫৫তে সেট করি তাহলে ৫৫-৫ = ৫০ এর কম হয় তাহলে হিউমিডিফায়ার, এবং যদি ৫৫+৫=৬০ এর বেশি হয় তাহলে ডি-হিউমিডিফায়ার চালু হবে।
  • বাজার বা এলার্ম (স্পিকার) – যদি কোন কারনে টেম্পারেচার বা হিউমিডিটি সেট করা লেভেলের চেয়ে অনেক বেশি বা অনেক কম হয়ে যায় তাহলে বাজার (স্পিকার) বাজতে থাকবে।
  • ভেন্টিলেশন পদ্ধতি- ভেন্টিলেশন এর রিলেটা ২ঘন্টা পর পর একবার অন হবে ৫মিনিট এর জন্য। ইনকিউবেটরের ভেতরের অতিরিক্ত তাপ ও কার্বন ডাই অক্সাইড বের করে দেয়ার জন্যই এটি ব্যবহার করা হয়েছে।
  • মোটর রিলে- মোটর রিলে টা ১.৫ (দেড়) ঘন্টা পর অন হবে। ৩০ সেকেন্ডের জন্য। মূলত এই কন্ট্রোলার এর মোটর রিলে দিয়ে ডিম কে নাড়ানো বা এগ টার্নার ব্যবস্থা রাখাই মূল উদ্দেশ্য।

বিশেষ দ্রষ্টব্য

এই ইনকিউবেটর কন্ট্রোলারে মোটামুটি সব ধরনের ডিটেইলসই দেয়া আছে। মেইন কোডিং ফাইলও দেয়া হয়েছে সুতরাং কোন ফিচার চেঞ্জ করতে চাইলে করতে পারবেন। করলে সেটা আমাদের ফেসবুক গ্রুপে আপলোড দিয়েন, এটুকু অনুরোধ থাকবে। নিচে দেখতে পাচ্ছেন পিসিবি লেয়াউটের ছবি। (মূল ফাইল পিডিএফ আকারে ডাউনলোড লিংক থেকে পাবেন)

কন্ট্রোলারের পিসিবি লেয়াউট
কন্ট্রোলারের পিসিবি লেয়াউট

কোডিং পিসিবি ডিজাইন ও অন্যান্য ফাইল সমূহ

ডাউনলোড লিংকঃ https://drive.google.com/open?id=1JeFuQZLiXxhaVd0isvqYixk_YLlFMMnj

এখানে যে জিপ ফাইল দেয়া আছে সেখানে একটি ইনকিউবেটরের ফাইল রয়েছে। যেসকল জিনিস এই ফাইলে পাবেনঃ

  1. পিসিবি লেআউট- প্রোটিয়াস ফাইল এবং পিডিএফ দুটোই দেয়া আছে। নিজের মত করে এডিট করে নিতে পারবেন। 🙂
  2. মাইক্রোকন্ট্রোলারের কোড ও হেক্সা ফাইল- Atmega328 দিয়ে করা হয়েছে। চাইলে Atmega8 ও ব্যবহার করতে পারবেন। হেক্স ফাইল এবং আরডুইনো ফাইল দুটোই দেয়া আছে। নিজের মত করে এডিট করে নিতে পারবেন। 🙂
  3. কম্পোনেন্ট লিস্ট। যা যা কম্পোনেন্ট লাগবে তার একটা খসড়া লিস্ট দেয়া আছে।
  4. ফিচার সমূহ। কি কি ফিচার রয়েছে সেটার বিশদ বর্ননা। কমেন্টে দেয়া থাকছে সেগুলো।

কাজটা মূলত গ্রুপেরই একজনের জন্য করা হয়েছিলো। যদিও তিনি সব পাবার পরে এখন কেন জানি না মেসেজের রিপ্লাই দিচ্ছেন না। মনে হয় রিপ্লাই বাটনে কোন সমস্যা হয়েছে তার।

যাইহোক, নিচে দেখতে পাচ্ছেন আমার তৈরি করা কন্ট্রোলারের ছবি।

আমার তৈরি কন্ট্রোলারের ছবি

তৈরি ইনকিউবেটর কন্ট্রোলারের ছবি
তৈরি ইনকিউবেটর কন্ট্রোলারের ছবি

আশাকরি ইনকিউবেটর কন্ট্রোলার তৈরি পদ্ধতির এই লেখাটি খামারীদের কাজে আসবে। আরডুইনো ও মাইক্রোকন্ট্রোলার প্রজেক্ট হিসেবেও এটি ব্যবহার করা যেতে পারে। যেহেতু আরডুইনো কোড, হেক্সা ফাইল ও প্রটিয়াস ফাইল সংযুক্ত আছে তাই যে কেউ চাইলেই এটি মডিফাই করতে পারেন। তাই ইনকিউবেটর ক্রয় না করে এখনি ঘরে বসে নিজেই তৈরি করুন ইনকিউবেটার কন্ট্রোলার।

কমেন্ট করুন-